মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ০৯:১৩ অপরাহ্ন
নোটিশ ::
বাংলাদেশ সারাবেলা ডটকমে আপনাদের স্বাগতম। সারাদেশের জেলা,উপজেলা ও বিশ্ববিদ্যালয়ে  প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন - ০১৭৯৭-২৮১৪২৮ নাম্বারে
সংবাদ শিরোনাম ::
ঐতিহাসিক ২৩ জুন এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ পরানপুরকে হারিয়ে জোরগাছা প্রিমিয়ার লিগ-২০২৪ এর চ্যাম্পিয়ন শিবপুর পাবনা জেলার আটঘরিয়া উপজেলায় এ প্লাস প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনার আয়োজন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রেস ক্লাবের কার্যনির্বাহী কমিটির আত্মপ্রকাশ চকরিয়ায় ৩১ বছর শিক্ষকতার পর স্কুলের সিনিয়র শিক্ষককে রাজকীয় বিদায় হবিগঞ্জ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথমবারের মত “বিশ্ব দুগ্ধ দিবস উদযাপিত বদরখালীতে ভুয়া ডাক্তার উম্মে হাবিবা’র ফাঁদে অসহায়রা পাবনা ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার উদ্যোগে দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কৃতি ছাত্রদের সম্বর্ধনা অনুষ্ঠিত পাবনায় পানিতে ডুবে ১২ বছরের কিশোরের মৃত্যু রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে ফটোগ্রাফি সোসাইটির নতুন কমিটি গঠন  দুর্নীতি প্রতিরোধ বিষয়ক বিতর্ক প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন কয়রাবাড়ী বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়  পাবনায় প্রথমবারের মত আয়োজিত হতে যাচ্ছে ক্যাট শো প্রতিযোগিতা ঈশ্বরদীতে বুড়িমারী এক্সপ্রেস ট্রেন লাইনচ্যুত; তদন্ত কমিটি গঠন হায়দারপুরে এক রাতে ১৫ টি গরু চুরি জামিনে মুক্তি পেলেন সাবেক সহকারী প্রক্টর দ্বীন ইসলাম রবীন্দ্র জয়ন্তীর কেন্দ্রীয় কর্মসূচিতে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের অংশগ্রহণ রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে ইনোভেশন প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত নোবিপ্রবি সায়েন্স ক্লাবের নেতৃত্বে দেওয়ান—শাওন ব্যাগ ভর্তি টাকা সহ সুজানগর উপজেলা নির্বাচনের চেয়ারম্যান প্রার্থী আটক কক্সবাজার জেলায় ১০ম বারের মতো শ্রেষ্ঠ ওয়ারেন্ট তামিলকারি অফিসার মহসিন, শ্রেষ্ঠ অস্ত্র উদ্ধারকারী সোলায়মান যবিপ্রবিতে দুই দিনব্যাপী শুরু হতে যাচ্ছে বৈশাখী মেলা ও লোকসংস্কৃতি উৎসব চকরিয়ার হারবাংয়ে হাতি মারার বৈদ্যুতিক ফাঁদে জড়িয়ে কৃষকের মৃত্যু শহীদ এম মনসুর আলী কলেজের প্রতিষ্ঠাতা প্রিন্সিপাল আর নেই আটঘরিয়া উপজেলা নির্বাচন ২৯ মে, চেয়ারম্যান পদে লড়বেন ৩ জন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে দৈনিক সমকালে অপপ্রচারের বিরুদ্ধে  শিক্ষক সমিতির প্রতিবাদ

পটুয়াখালীর দুমকীতে জমি দখলের পাঁয়তারা ও মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ

দুমকী প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১২ জানুয়ারী, ২০২১
  • ২৩০ ০০০ বার

পটুয়াখালী দুমকি উপজেলার ৩নং মুরাদিয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের উত্তর মুরাদিয়া মধ্যপাড়া গ্রামে স্বামীহারা বিধবা অসহায় বিনা রানী মিত্রকে স্বামীর সম্পত্তির অধিকার থেকে বঞ্চিত করছে মিথ্যা মামলা দিয়ে ভিটা মাটি দখল করার পাঁয়তারার অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগকারী অসহায় বিনা রানী মিত্র বলেন, ২৬ বছর আগে আড়াই বছরের একটি ছেলে বাদল মিত্র ও এক মেয়ে অনিমা রানী মিত্র রেখে স্বামী দুলাল মিত্র পরলোক গমন করেন। স্বামীকে হারিয়ে দুই সন্তান নিয়ে দুঃখের সাগরে ভাসছেন আজও। অন্যদিকে মৃত স্বামীর রেখে যাওয়া ভিটা মাটি দখলের উদ্দেশ্যে পাঁয়তারা করছে ভূমি দস্যু ও সন্ত্রাসী মহল। বিনা রানী জানান, স্বামী দুলাল মিত্রের মৃত্যুর পরে ওয়ারিশ নেই দেখিয়ে একটি কুচক্রী মহল আমাদের সম্পত্তি ভোগ করতে চায়। এ নিয়ে আদালতে মামলা দিয়ে হয়রানি করছেন ভূমি দস্যু নিলকন্ট মিত্র ও তার ভাই সুশিল মিত্র। নিলকন্টের ছেলে নির্মল মিত্র এবং তাদের সহযোগিতা দিচ্ছে জুরান মাস্টার ও তার দুই ছেলে বিকাশ দাস ও শেখর দাস মামলা চালাতে গিয়ে নিঃস্ব হয়ে মানবতার জীবন-যাপন করছেন বিনা রানী মিত্র। তিনি আরও বলেন, লাউকাঠী ইউনিয়নের ঢেউখালীতে আর একটা বাড়ি রয়েছে। এখানে ৮০ হাজার টাকার গাছ কেটে নিয়ে বিক্রি করেছে সুশীল মিত্র ও নিলকন্ঠ মিত্র ও তার ছেলে নির্মল বাঁধা দিতে গেলে তাকে মারধর করে এবং মেরে ফেলার হুমকি দেয়। এদের মদদ দিচ্ছে জুরান মাস্টার ও তার দুই ছেলে বিকাশ চন্দ্র দাস। ঢাকা বিআইডবলিওটিএ এর একজন কর্মকর্তা হিসাবে চাকরি ও তার ভাই শেখর চন্দ্র দাস চট্টগ্রাম পোর্ট কর্মকর্তা তারা সরকারি ক্ষমতা দেখিয়ে আমাদের ভিটামাটি ছাড়া করার ও জীবন নাশের হুমকি দিচ্ছে। এভাবে দীর্ঘ কয়েক বছর যাবৎ একের পর এক শারীরিক ও মানসিক অত্যাচার চালিয়ে আমাদের সম্পত্তি আত্মসাৎ করার পাঁয়তারা চালাচ্ছে। ভূমি দস্যু নিলকন্ঠ ও সুশীল মিত্র ও নির্মল মিত্র এদের ভয়ে বাড়ি ছেড়ে বরিশালে মেয়ে অনিমার কাছে গিয়ে জীবন-যাপন করতে হয়। এমন অবস্থায় কোথায় যাবো? কি করবো? কিভাবে বাঁচবো? এদের অত্যাচারের হাত থেকে বাঁচতে পথ খুঁজে পাচ্ছি না বলে সাংবাদিকদের সামনে কেঁদে ফেললেন অসহায় বিনা রানী মিত্র। তিনি সাংবাদিকদের মাধ্যমে আইনের কাছে সুবিচার পাওয়ার সহযোগিতা কামনা করেন। এ বিষয়ে একই বাড়ির সুনিল মিত্র বলেন, ২০১৩ সালে ভূমি দস্যু নির্মল মিত্র জাল দলিল করেন এবং বিরেন রক্ষিত এর নামে একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। ধান কাটা নিয়ে সুনিল মিত্র মন্তোষ মিত্র সুমন মিত্র ও বিরেন রক্ষিত নিরঞ্জন নাগ ও মনোরঞ্জন নাগ এদের ৬ জনকে আসামি করে একটি মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করে। এ ছাড়া মৃত দুলাল মিত্রের সম্পত্তি আত্মসাৎ করতে ওয়ারিশ ছেলে বাদল থাকা সত্ত্বেও ওয়ারিশ নাই দেখিয়ে বিনা রানী ও বাদলের নামে মামলা দিয়েছেন সুশীল মিত্র নিলকন্ঠ মিত্র পিতা মৃত রাধা চরন মিত্র। এভাবে একাধিক মিথ্যা মামলায় মানুষকে হয়রানি করে জমি আত্মসাৎ করা এদের পেশা এরা এলাকার সন্ত্রাসী লাঠিয়াল বাহিনী ও ভূমি দস্যু।

সুনিল মিত্রের দুই ছেলে মনোতোষ ও সুমন মিত্র বলেন, আমরা নিরাপত্তাহীনতায় জীবন কাটাচ্ছি। সুশীল মিত্র বহিরাগত সন্ত্রাসী বাহিনী এনে আমাদের মারার জন্য দেখিয়ে দেয়। আমি বাজারে ব্যবসা করি। রাতে একা বাড়িতে ফিরতে হয় আতংক নিয়ে। এদের হাত থেকে রেহাই পেতে আইনের সহযোগিতা একান্ত প্রয়োজন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..