শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:১৫ অপরাহ্ন
নোটিশ ::
বাংলাদেশ সারাবেলা ডটকমে আপনাদের স্বাগতম। সারাদেশের জেলা,উপজেলা ও বিশ্ববিদ্যালয়ে  প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে, আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন - ০১৭৯৭-২৮১৪২৮ নাম্বারে
সংবাদ শিরোনাম ::
পাবলিক ইউনিভার্সিটি স্টুডেন্টস অ্যাসোসিয়েশন অব ঝিনাইগাতী’র সভাপতি নাজমুল, সম্পাদক জিম পাথেয় এর সভাপতি মামুন, সম্পাদক শারীফুল ইসলাম “পহেলা বৈশাখ ও সাম্প্রদায়িক বিতর্ক “ ঈশ্বরদীর নওদাপাড়ায় ৪র্থ বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত ঈদের শুভেচ্ছা জানালো রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি সহস্রাধিক সাইটেশনের মাইলফলক স্পর্শ করলেন রবীন্দ্র উপাচার্য  ইদের পরেই বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের কমিটি হবে: শেখ ইনান প্রথম বর্ষে ভর্তিপরীক্ষা বিষয়ে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত মৌলবাদ জঙ্গিবাদ মূলোৎপাটন ও বুয়েটে ছাত্র রাজনীতির দাবিতে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের মানববন্ধন নোবিপ্রবির সঙ্গে যুক্তরাজ্যের নটিংহাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর যবিপ্রবিতে পিএইচডি সেমিনার ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে সুশাসনের নিমিত্ত অংশীজনের সভা অনুষ্ঠিত  যশোরে সমরাস্ত্র প্রদর্শনীতে যবিপ্রবির শিক্ষার্থীরা সবুজ বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে তরুণদের ‘মিশন গ্রিন বাংলাদেশ’ ডিআইইউ’র ১০ শিক্ষার্থী বহিষ্কারের প্রতিবাদে নোবিপ্রবিতে মানববন্ধন  স্বাধীনতা দিবসে ইবির খালেদা জিয়া হলে আলোচনা সভা ও দোয়া   রবির কুড়িগ্রাম জেলা শিক্ষার্থী কল্যাণ সমিতির দায়িত্বে জ্বীম-মনির নানা আনুষ্ঠানিকতায় যবিপ্রবিতে মহান স্বাধীনতা দিবস উদযাপিত রবির বগুড়া জেলা শিক্ষার্থী কল্যাণ সমিতির দায়িত্বে সোয়েব-সমুদ্র রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে মহান স্বাধীনতা দিবস উদযাপন  স্বাধীনতাকে নিয়ে ববি শিক্ষার্থীদের ভাবনা রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগার্ডকে স্থানীয় যুবকের মারধর  ববিতে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত চকরিয়ার মালুমঘাটে ইফতারের পূর্বে যুবককে তুলে নিয়ে ছুরিকাঘাতে হত্যা যবিপ্রবির তীর্থ কর্তৃক আয়োজিত ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত

প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় হয়রানির শিকার ইবি শিক্ষার্থী

ফারহানা নওশীন তিতলী , ইবি প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১২ মে, ২০২১
  • ৩৯০ ০০০ বার

প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় হুমকি ও হয়রানির শিকার হয়েছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রী। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে অধ্যয়নরত।

প্রেমের প্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ার প্রতিবাদে ওই ছাত্রীর ছবি দিয়ে ফেক আইডি খোলা এবং ফটোশপে ছবি বিকৃতি করে ফেসবুকে পরিচিত বন্ধু-বান্ধব ও সিনিয়রদের রিকোয়েস্ট পাঠান ফারুক। এসময় তিনি ওই ছাত্রীকে অশ্লীল ছবি ও ভিডিও পাঠান বলে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী।

অভিযুক্ত ছাত্রের নাম ফারুক হোসেন। তিনি একই বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে অধ্যয়নরত।

মঙ্গলবার (১১ মে) বেলা ১১ টায় ভুক্তভোগী ছাত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি ফেসবুক গ্রুপে (ইবিয়ান) অভিযুক্তের ফেসবুক একাউন্ট ও হয়রানি মূলক কিছু স্ক্রিনশট শেয়ার করেন। এবং সন্ধ্যায় সাইবার বুলিংয়ের প্রতিকার, হুমকির পরিপ্রেক্ষিতে নিরাপত্তা ও অভিযুক্তের শাস্তির দাবি জানিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর বরাবর লিখিত অভিযোগ দেন।

ক্যাম্পাস সূত্রে জানা যায়, ফেসবুক গ্রুপে ভুক্তভোগী ছাত্রী স্ট্যাটাসটি দিলে মুহূর্তের মধ্যে তা ভাইরাল হয়। এতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তুমুল সমালোচনার সম্মুখীন হন অভিযুক্ত ওই ছাত্র। এসময় সাধারণ শিক্ষার্থীরা তার বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ উত্থাপন করে এবং প্রশাসনের কাছে তার বহিষ্কারসহ শাস্তির দাবি জানান। পরে স্ট্যাটাসটি সরিয়ে ফেলার জন্য ফেক আইডি থেকে হুমকি দেয়া হয় বলে অভিযোগ করেছেন ওই ছাত্রী।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ভর্তি হওয়ার কিছুদিন পর থেকেই ফারুক হোসেন তাকে সরাসরি ও মেসেঞ্জারে বিরক্ত করে আসছেন। করোনাকালীন ক্যাম্পাস বন্ধ হওয়ার আগেও বেশ কয়েকবার কুপ্রস্তাব দেন। প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় তিনি তার পিছু নিয়ে বাজে মন্তব্য করতেন। এসময় ভুক্তভোগী ছাত্রী তার সহপাঠীদের বিষয়টি জানান। এর কিছুদিন পরেই করোনায় ক্যাম্পাস বন্ধ হয়।

পরে ক্যাম্পাস বন্ধ থাকাকালীন গত সেপ্টেম্বর মাসের দিকে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী ক্যাম্পাসে ঘুরতে আসলে ফের ফারুক তার পিছু নেন এবং নানা কুপ্রস্তাব দেয়। প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করেন এবং ক্ষতি করার হুমকি দেন। তিনি ক্যাম্পাসের ছাত্রলীগ নেতা ও বড় ভাইদের পরিচয় দিয়ে ভয় দেখান বলেও অভিযোগপত্রে উল্লেখ করেন ভুক্তভোগী ছাত্রী।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী বলেন, ‘ প্রথমে আমি ব্যাপারটি স্বাভাবিক ভাবেই নিয়েছিলাম। কিন্তু তার কিছুদিন পর থেকে উনি আমার নামে খারাপ আইডি খোলা, কুপ্রস্তাব ও হুমকি ধামকির দেওয়ায় নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। এছাড়া বিষয়টি আমার পরিবারও জানতে পেরেছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম বর্ষেই এমন একটি বাজে ঘটনায় আমি মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছি। আমি অভিযুক্তের যথাযথ শাস্তি দাবি করছি।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত শিক্ষার্থীকে একাধিকবার কল করেও তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়ায় তার সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, ‘ বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় আমাকে ওই ছাত্রী হোয়াটস এ্যপে অভিযোগ পত্র পাঠিয়েছে। এই বিষয়ে আমি ভিসি স্যারের সাথে কথা বলেছি। ঈদের ছুটিতে ক্যাম্পাস বন্ধ থাকায় এই মুহুর্তে কিছু করা সম্ভব হচ্ছে না। ঈদের পর আমরা দুই পক্ষের সাথে কথা বলে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেবো। গতকাল থেকে অভিযুক্ত শিক্ষার্থীর সঙ্গে আমি নিজে ও থানার মাধ্যমে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেছি কিন্তু তার কোন খবর পাওয়া যায়নি। তবে যেহেতু সে আমাদের স্টুডেন্ট তাকে অবশ্যই পাওয়া যাবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..